গর্ভাবস্থায় রসুন খেলে হতে পারে মারাত্মক বিপদ

গর্ভাবস্থায় রসুন খেলে হতে পারে মারাত্মক বিপদ

প্রাকৃতিক এন্টিবায়োটিক হিসেবে রসুনের উপকারিতা রয়েছে। এছাড়া বিভিন্ন রোগে রসুনের উপকারিতা পাওয়া গেছে। তবে কোনো কিছুই অতিরিক্ত ভালো নয়। তেমনি মশলা হিসেবে বহুল ব্যবহৃত রসুনের অতিরিক্ত ব্যবহারেও রয়েছে পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া। খালি পেটে রসুন খেলে অনেকের ডায়রিয়া হতে পারে। আবার গর্ভবতী নারীদের ক্ষেত্রে রসুন খাওয়া বিপজ্জনক হতে পারে। চলুন তবে জেনে নেয়া যাক রসুনের বিভিন্ন অপকারিতা সম্পর্কে- > লিভারে বিষক্রিয়া তৈরি করতে পারে রসুন। রক্ত পরিশোধন, চর্বি ও প্রোটিন বিপাক, শরীর থেকে অ্যামোনিয়া অপসারণ ইত্যাদি হলো লিভারের অন্যতম কাজ। > গবেষণা বলছে, রসুনে থাকা অ্যালিসিন নামক উপাদান লিভারে বিষক্রিয়া তৈরি করতে পারে। তাই অতিরিক্ত রসুন খাওয়া থেকে বিরত থাকুন। > রক্তের ঘনত্ব কমায় রসুন। তাই যারা ওয়ারফারিন, অ্যাসপিরিন ইত্যাদি ওষুধ সেবন করেন, তাদের অতিরিক্ত রসুন খাওয়া উচিত নয়। এতে রক্ত অতিরিক্ত পাতলা হতে পারে। > রক্তচাপ কমে যেতে পারে অতিরিক্ত রসুন খেলে। বিভিন্ন গবেষণায় দেখা গেছে, দীর্ঘদিন রসুন খেলে ঘাম বেশি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। > গর্ভবতী নারী রসুন খেলে প্রসব বেদনা বেড়ে রক্তক্ষরণ হতে পারে। এ ছাড়াও শিশুকে বুকের দুধ খাওয়ানো মায়েরাও রসুন খাবেন না। এতে দুধের স্বাদ পাল্টে যেতে পারে। > নারী যৌনাঙ্গে ইস্টজনিত প্রদাহের চিকিৎসা চলাকালীন রসুন খাওয়া থেকে দূরে থাকুন। রসুন নারী যৌনাঙ্গের সংবেদনশীল টিস্যুতে অস্বস্তি সৃষ্টি করে। > অতিরিক্ত রসুন খেলে হাইফিমা হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। ফলে আইরিস ও কর্নিয়ার মাঝে রক্তক্ষরণ ঘটে দৃষ্টিশক্তি হারানোর ঝুঁকি বাড়ে। > যুক্তরাষ্ট্রের ন্যাশনাল ক্যান্সার ইনস্টিটিউটের প্রকাশিত গবেষণা অনুযায়ী, খালি পেটে কাঁচা রসুন খেলে বুক জ্বালাপোড়া, বমিভাব ও বমি হতে পারে।