বীরগঞ্জের মোহনপুর ইউপি চেয়ারম্যান পদে আ.লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী মনিরুল ইসলাম মানিক 

মোঃ তোফাজ্জল হোসেন,বীরগঞ্জ প্রতিনিধি

বীরগঞ্জের মোহনপুর ইউপি চেয়ারম্যান পদে আ.লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী মনিরুল ইসলাম মানিক 

 দিনাজপুরের বীরগঞ্জ উপজেলার ১০নং মোহনপুর ইউনিয়ন পরিষদের আসন্ন নির্বাচনে আওয়ামীলীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী সম্ভাব্য চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী মনিরুল ইসলাম মানিক নির্বাচনে অংশগ্রহণের লক্ষ্যে ব্যাপক ভাবে গনসংযোগ চালিয়ে যাচ্ছেন। 

সৎ যোগ্য ও নিষ্ঠাবান ব্যক্তি এবং বঙ্গবন্ধুর আদর্শে বিশ্বাসী উপজেলা আ.লীগের সদস্য, মোহনপুর ইউনিয়ন আ.লীগের সাবেক  সভাপতি, বর্তমানে ইউনিয়ন কৃষকলীগের আহ্বায়ক ও সাবেক দুইবার নির্বাচিত ইউপি সদস্য কৃষ্ণনগর গ্রামের মোঃ আব্দুস সাত্তারের তৃতীয় ছেলে মোঃ মনিরুল ইসলাম মানিক।  

স্কুল জীবন থেকেই মনিরুল ইসলাম মানিক ছাত্রলীগের রাজনীতির সাথে তিনি সম্পৃক্ত। দলের স্বার্থে ২০০৩ সালে বীরগঞ্জ সরকারি কলেজ ছাত্রলীগের সদস্য থাকাকালীন বিভিন্ন মিছিল-সমাবেশে অনেক বার নির্যাতনের শিকার হয়েছেন। তিনি বতর্মানে বীরগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী বঙ্গবন্ধু সৈনিক লীগের যুগ্ম আহ্বায়ক। মানিক বিভিন্ন সামাজিক উন্নয়নমূলক কাজ সহ দলীয় কর্মকাণ্ডে দীর্ঘদিন থেকে জড়িত রয়েছেন এবং কি দলের সকল কর্মকান্ডের সাথে নিজেকে নিয়োজিত রাখেন।

 গত ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে তিনি চেয়ারম্যান প্রার্থী হতে চেয়েছিলেন, কিন্তু প্রথমবারের মত দলীয় নৌকা প্রতীক থাকায় দলকে ভালোবেসে সেচ্ছায় নির্বাচন থেকে সড়ে দাঁড়ায় এবং যাকে নৌকা প্রতীক দেওয়া হয়,তার পক্ষেই নির্বাচন সিন্ধান্ত নেয়। জনপ্রিয়তার জন্য এলাকার বাসী চায়, তার পরিবার থেকে কেউ অন্য পদে নির্বাচন করুক। সেসুবাধে সকল মানুষকে সঙ্গে নিয়ে তার স্ত্রী মোছাঃ আয়েশা আক্তার বৃষ্টিকে ইউনিয়ন মহিলা ওয়ার্ড সদস্য হিসেবে নির্বাচন করবে। নির্বাচনে তার স্ত্রী বিপুল ভোটে জয়ী হয়। ইউনিয়ন পরিষদের দুইবছর যেতে না যেতে উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয় এবং পরবর্তীতে দলীয় সিন্ধান্তে ইউনিয়ন পরিষদে সদস্য পদে অব্যাহত দিয়ে ২০১৯ সালে উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ১টি পৌরসভা ও ১১টি ইউনিয়নে বিপুল ভোট পেয়ে নির্বাচিত হন। 


মনিরুল ইসলাম মানিক এক সাক্ষাৎকারে বলেন, দলের পদ পদবী নয়, একজন আওয়ামী লীগের কর্মী হয়ে থেকেও অনেক কাজ করা সম্ভব। দীর্ঘদিন যাবত দলীয় ও ব্যক্তিগত ভাবে এই এলাকার আওয়ামীলীগ সরকারের উন্নয়নের স্বার্থে একাত্বতা ঘোষণা করে আপামর জনসাধারণের কল্যাণে নিজেকে নিয়োজিত রেখেছি।  বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে লালন করে তিনি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার হাত শক্তিশালী করার লক্ষ্যে কাজ করে যাচ্ছেন এবং তার বাবা আব্দুস সাত্তারের মত জনগণের সেবক হিসেবে কাজ করার লক্ষ্যে আসন্ন ইউপি নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে দলীয় মনোনয়ন চাইবেন তিনি। সর্বপরি তিনি এই এলাকার সাধারণ মানুষ ও ভোটারদের প্রাণের দাবী মেটাতে দলীয় মনোনয়নে নৌকা প্রতীক পেলে আসন্ন মোহনপুর ইউপি নির্বাচনে বিপুল ভোটের ব্যবধানে শতভাগ জয় লাভের আশার কথা জানিয়ে সংশ্লিষ্ট সকলের দোয়া, আশির্বাদ ও সহযোগিতা কামনা করেছেন।